বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৯:২৮ অপরাহ্ন
নোটিশঃ
বিডি ২৪ ক্রাইম সাথে থাকুন। আপডেট খবর পড়ুন

কোভিড-১৯ বিস্তার রোধ বিষয়ক আলোচনা সভায় জেলা প্রশাসক করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে জারিকৃত বিধি-নিষেধ সবাইকে মেনে চলতে হবে

রির্পোটারের নাম / ১৫৬ বার প্রিন্ট / ই-পেপার প্রিন্ট / ই-পেপার
আপডেট সময় :: বৃহস্পতিবার, ১৩ জানুয়ারি, ২০২২, ৪:২৯ অপরাহ্ণ

রঞ্জন মজুমদার শিবু : করোনা ভাইরাস এর সংক্রমণ ও প্রতিরোধসহ সার্বিক ব্যবস্থাপনা বিষয়ক জেলা কমিটির সভার সিন্ধান্ত অনুযায়ী করোনা ভাইরাস জনিত রোগ (কোভিড-১৯) এর বিস্তার রোধে সার্বিক কার্যাবলি/চলাচলে বিধি-নিষেধ আরোপ বিষয়ক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারী) সকালে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় সম্মেলন কক্ষে এ আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা প্রশাসন আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ এনামুল হক।
জেলা প্রশাসক বলেন, করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে জারিকৃত বিধি-নিষেধ সবাইকে মেনে চলতে হবে। দোকান, শপিংমল ও বাজারে ক্রেতা-বিক্রেতা এবং হোটেল-রেস্তোরাসহ সকল জনসমাগমস্থলে বাধ্যতামূলকভাবে সবাইকে মাস্ক পরিধান করতে হবে। অন্যথায় তাকে আইনানুগ শাস্তির সম্মুখীন হতে হবে। সবাইকে টিকা গ্রহণ করতে হবে এবং সনদ সংগ্রহ করতে হবে। টিকার সনদ সংগহে কোন সমস্যা হলে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের ২১৩ নং রুমে যোগাযোগ করার জন্য আহবান জানান। তিনি আরো বলেন, রেঁস্তোরায় বসে খাবার গ্রহণ এবং আবাসিক হোটেলে থাকার জন্য অবশ্যই করোনা টিকা সনদ প্রদর্শন করতে হবে। টিকার সনদ ছাড়া হোটেল রেস্তোরায় যাওয়া যাবে না এবং সেখানে কর্মরত সকলকেই টিকার সনদ সংগ্রহ করতে হবে। রাত ৮টার পর ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করতে হবে। অন্যথায় মোবাইল কোর্ট পরিচলানা করা হবে।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোঃ জাহাঙ্গীর আলম এর পরিচালনায় সভায় সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ নজরুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফজলে রাব্বি, অতিরিক্ত জেলা
ম্যাজিস্ট্রেট আয়েশা হক, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি অধিদপ্তরের প্রোগ্রামার নূরে আলম সিদ্দিকি, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ও মটর মালিক সমিতির সভাপতি
মমতাজ উদ্দিন মন্তা, চেম্বার অব কমার্স এর সিনিয়র সহ- সভাপতি শংকর সাহা, বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিক বৃন্দসহ সংশ্লিষ্ট সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
সিভিল সার্জন বলেন, সংক্রমনের হার দিন দিন বেড়েই যাচ্ছে। তাই আমাদের এখনই সচেতন হতে হবে এবং প্রতিরোধ করতে হবে। কঠোর ভাবে স্বাস্থ্যবিধি মানতে হবে। অন্যথায় স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষে সুরক্ষা দেওয়া কঠিন হয়ে পড়বে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার মতামত লিখুন
Theme Created By ThemesDealer.Com